বিএনপির ভোট বর্জনের মধ্যেদিয়ে শেষ হল গলাচিপা পৌরসভা নির্বাচন

৭১বিডি২৪,নিজস্ব প্রতিবেদক:

সকালের দিক দিয়ে বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে শত শত নারী পুরুষ নিজের পছন্দের মার্কায় ভোট দেয়ার জন্য সারি বেধে দারিয়ে থেকে ভোট প্রদান করেন ভোটাররা।

অপর দিকে, ভোট গ্রহণ শুরু হওয়ার আড়াই ঘণ্টা পর নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েছে বিএনপি। রবিবার সকাল সাড়ে দশটায় গলাচিপা উপজেলা বিএনপি কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে মধ্যেদিয়ে ভোট বর্জনের এ ঘোষণা দেয়া হয়।

আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে পৌরসভা নির্বাচন কমিটির আহ্বায়ক মোঃ শাহজাহান খান বলেন, বিএনপির প্রার্থী মোঃ আবু তালেব মিয়াকে নির্বাচনী মাঠ থেকে সরিয়ে দেয়ার জন্য দুই দিন আগে থেকেই আওয়ামী লীগের পটুয়াখালী জেলা ও গলাচিপা উপজেলার নেতাদের সরাসরি নির্দেশে বিএনপি প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের বিরুদ্ধে একাধিক মিথ্যা মামলা করিয়ে হয়রানি করা শুরু হয়। ভোট গ্রহণ শুরু হতে না হতেই আওয়ামী লীগের প্রার্থী আবদুল ওহাব খলিফার ভাড়া করা বহিরাগত ক্যাডাররা বিভিন্ন কেন্দ্র থেকে বিএনপির প্রার্থীর নির্বাচনী এজন্টেদের বের করে দিয়ে কেন্দ্র দখল করে নেয়। এ অবস্থায় বিএনপির পক্ষ থেকে আমরা গলাচিপা পৌরসভা নির্বাচনের ভোট বর্জন করলাম। এ সময় আর উপস্থীত ছিলেন, উপজেলা বিএনপির সভাপতি গোলাম মোস্তফা , ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সংসদের সহ সভাপতি মো:ইফতিয়ার রহমান কবির, জাহাঙ্গীর হোসেন খানসহ বিভিন্ন নেতা কর্মী উপস্থিত ছিলেন।

অন্যদিকে পাল্টা সংবাদ সন্মেলন করে আওয়ামীলীগ প্রার্থী হাজী আ: ওহাব খলিফা সংবাদ সম্মেলনে নির্বাচনে শান্তিপূর্ন ভোটগ্রহন দাবী করে বলেন, বিএনপি তারা নিশ্চিত পরাজয় জেনে তারা নির্বাচন থেকে সরে দারিয়েছে। ‘বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মোঃ আবু তালেব মিয়া এর আগে দু’ বার নির্বাচন করে আমার সঙ্গে হেরেছেন। কেন্দ্র থেকে বিএনপির এজেন্ট বের করে দেয়া বা কেন্দ্র দখল করে নেয়ার অভিযোগ সঠিক নয়। এ সময় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আখম জাহাঙ্গীর হোসাইন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খান মোশারফ হোসেন,উপজেলা চেয়ারম্যান সামসুজ্জামান লিকন, উপজেলা আ”লীগের সভাপতি সন্তোষ কুমার দে ,কেন্দ্রীয় যুবলীগের স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক কামরান সাইদ প্রিন্স মহব্বত, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক (দক্ষিন) মো: আরিফুর রহমান টিটো ও কেন্দ্রীয় যুবলীগের সদস্য মু: মামুন আজাদ প্রমূখ।

এ ব্যাপারে গলাচিপা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবদুল্লাহ আল বাকী জানান, বিএনপির পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে তা সঠিক নয়। তবে আইন শৃংখলা বাহিনীসহ ভোট সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা কর্মচারীরা সুষ্ঠু ও সুন্দর ভাবে ভোট গ্রহনের জন্য সর্বত্মক সহযোগিতা করছে।

Recommended For You

About the Author: HumayrA

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *