পটুয়াখালীর গলাচিপায় প্রেমের অভিযোগে নারীর মাথা ন্যাড়া

(৭১বিডি২৪) গলাচিপা, পটুয়াখালী:

অবশেষে রাবেয়া বেগমের চুল কেটে মাথা ন্যাড়া করার ঘটনায় গলাচিপা থানায় ৭ জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছে রাবেয়ার স্বামী হাবিব রাড়ী। স্থানীয় এমপি আখম জাহাঙ্গির হোসাইনের ছোট ভাই নব-নির্বাচিত গজালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান খালেদুল ইসলাম স্বপনকে মামলায় ২ নং আসামী করা হয়েছে। পুলিশ রাবেয়াকে বোখরা পড়িয়ে থানা থেকে গলাচিপা আদালতে নিয়ে যায়। রাবেয়া আদালতে ঘটনার জবানবন্দী দেন।

মামলায় বলা হয়েছে, শনিবার রাত ৮টার দিকে পরকিয়া প্রেমের মিথ্যা অপবাদ দিয়ে রাবেয়া ও তার ভাশুর ছেলে নিজামকে গ্রাম পুলিশ কুদ্দুসকে দিয়ে ধরে আনা হয়। গজালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ ভবনের দোতলায় নিয়ে দুই জনকেই বেধে লাঠি দিয়ে মারধর করতে করতে ইউপি মাঠে নামানো হয়। সেখানে চেয়ারম্যান স্বপন নিজেই লাঠি দিয়ে পেটাতে পেটাতে বিব¯্র করে ফেলে রাবেয়াকে। এক পর্যায় নিজাম ও রাবেয়ার মাথার চুল কেটে ন্যাড়া করে দেয় স্বপন। এ সময় নিজামকে ৩০ হাজার টাকা জরিমানাও করা হয়।

আজ রবিবার দুপুরে গলাচিপা থানায় শালিস বৈঠকের মুখপাত্র কথিত ফতোয়াবাজ মাওলানা নাসির, মন্নান মৌলভী, নিজাম মেম্বর, স্বপনের ভাগ্নে আশরাফুল ইসলাম টিপু, শামসুল হক, এস এ কুদ্দুচ সহ অজ্ঞাত ১০/১২ জনকে আসামী করা হয়েছে। গলাচিপা থানা ওসি তদন্ত (মামলার আইউ) মো: রাফিকুল ইসলাম জানান ৩নং আসামি শামসুল হককে গ্রেফতার করা হয়েছে।

Recommended For You

About the Author: HumayrA

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *